একটু ডায়েট মেনটেন করলেই আওয়াজ দিতে শুরু করে বন্ধুরা। দু’দিন উপোস করলে চিন্তায় পড়ে যায় বাড়ির লোকজন। এ মেয়ে এবার শরীর খারাপ করেই ছাড়বে। দুর্বল মেয়ে এবার চেহারার বারোটা বাজাবে। কিন্তু এ নিয়ে যে অন্য কথা বলছেন বিশেষজ্ঞরা। আপনার ডায়েটই ধরে রাখবে আপনার মুড। বাড়বে ঘুমের পরিমাণ। বাড়বে সেক্সও।

পরিমানে কম খাবার খান। কিংবা অজুহাতে সকাল-বিকাল-রাতে খেয়েই কাটিয়ে দেন অনেকেই। এমনই কয়েকজনকে নিয়ে একটি সমীক্ষা চালায় জেএএমএ ইন্টারন্যাশনাল মেডিসিন। এতে দেখা গেছে, দু‘বছর ধরে এই নিয়মে যারা চলেছেন তাদের দৈনন্দিন জীবন অনেক বেশি ঝকঝকে। রাতে ভাল ঘুমও হয় তাদের। আর সেক্স লাইফও টানটান উত্তেজনায় ভরপুর।

২১৮ জনের একটি দলকে নিয়ে সমীক্ষাটি করা হয়। একদলকে বলা হয়, দু’বছরের মধ্যে তাদের ২৫ শতাংশ ক্যালোরি কমাতে হবে। আরেক দলকে ছাড় দেওয়া হয় পেটভরে খাওয়ার। দেখা গেল, যারা খাবারের লোভ সামলে ফাস্টিং ডায়েটে চলছে, তাদের ওজন গড়ে ১০ শতাংশ কমেছে। সঙ্গে বদল এসেছে জীবনযাপনেও। হতাশাকে অনেকটাই জয় করতে পেরেছেন তারা। এমনকি ঘুমের পরিমাণও বেশ বেড়েছে। সেক্সলাইফেও এসেছে বেশি স্ফূর্তি।

তবে দু’বছর ধরে ক্যালোরি কমানোর এই পরীক্ষা দেওয়া কিন্তু মোটেই সহজ নয়। অন্তত আমাদের প্রতিদিনের জীবনযাত্রাতে তো বটেই। তাই যা করবেন একটু ভেবেচিন্তে। অন্যথায় বিপদ ডেকে আনতে পারেন।

Share